অনলাইনে কিভাবে টাকা আয় করা যায়। (How to earn money online)

ফ্রিল্যাসিং বা অনলাইনে আয় কথাটি শুনতেই  যেন আমাদের চোখের সামনে ভেসে ওঠে ডলারের ছবি। আর আমরাও মনে মনে বলে ওঠি  আমিও ফ্রিল্যাসিং করব, অনলাইন থেকে আয় করব। বর্তমানে ফ্রিল্যাসিং  বা অনলাইনে আয় পেশাটি খুব জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। প্রতিমাসে লক্ষ লক্ষ মানুষ লক্ষ লক্ষ টাকা ইনকাম করছে অনলাইন থেকে। দক্ষতার ভিত্তিতে কেউ বেশী আয় করছে আবার  কেউ কম। এটাই স্বাভাবিক, যার অনলাইলে কাজ করার দক্ষতা বেশি এবং যে যত পরিশ্রম করবে সে বেশি আয় করবে  আর যার কম তার অনলাইন থেকে আয় কম হবে। বর্তমান বিশ্বে লক্ষ লক্ষ মানুষ আছে যার ফ্রিল্যাসিং বা অনলাইনে আয় করে ক্যারিয়ার গড়েছেন এবং পেশা হিসেবে বেছেনিয়েছেন অনলাইনে আয়ের বিভিন্ন সেক্টর।

এই সাফল্য কিন্তু রাতারতি  হয়নি।  অনেক ধৈর্য, রিসার্চ আর সাধনার পরের কিন্তু সবাই  এই ফ্রিল্যাসিং পেশায় সাফল্য অর্জন করে। আপনি আমার  এই পোস্টটি মনযোগ সহকারে পড়ছেন, অর্থাৎ আপনি ফ্রিল্যাসিং বা অনলাইনে আয় সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চান। আপনারও ইচ্ছা হয় ফ্রিল্যাসিং বা অনলাইনে ক্যারিয়ার গড়ার। আর তাই  আজকের পোস্টটি সাজিয়েছি, কিভাবে এবং কি পরিমান টাকা অনলাইন বা ফ্রিল্যাসিং থেকে আয় করা যায় এবং অনলাইন থেকে আয় করতে হলে আপনার কি কি বিষয়ে জানতে হবে , কিভাবে নিজেকে দক্ষ করে তুলবেন এ ব্যাপারে বিস্তারিতঃ

অনলাইনে-আয়

আরও পড়ুনঃ

অনলাইনে আয় কি?

অনলাইনে আয় বলতে আমরা একথায় বলতে পারি যে, অনলাইন থেকে যে আয় করা হয় সেটাইকেই আমরা সবাই অনলাইনে আয় বলি। আরও বিস্তারিত বা ভালভাবে বলতে গেলে,  অনলাইনের মাধ্যমে একটি কম্পিউটার বা ফোন দ্বারা  আমরা বিভিন্ন কোম্পানি বা ব্যক্তির  বিভিন্ন ধরনের কাজ করে বা ব্যবসা করে আমরা যে আয় করি সেটােই  অনলাইনে আয়।
  • অনলাইন থেকে কি কি ভাবে আয় করা যায়?
অনলাইন হতে বিভিন্ন ভাবে আয় করা যায়, বর্তমানে অনেকেই অনলাইনের মাধ্যমে অন্যের কাজ করে বা ব্যবসা করেও অনলাইন থেকে আয় করছেন। আমরা অনেকেই হয়ত জানি, ইদানিং ফেসবুক পেজের মাধ্যমে বিভিন্ন ধরনের পন্যের ব্যবসা  করে নিজের ক্যারিয়ার গড়েছেন অনেকেই। হয়ত হতেও পারে আপনার পরিচিত কেউ  একজনও তাদের দলে রয়েছে। এটাও কিন্তু অনলাইনে আয়ের মধ্যে পড়ে। অলাইন থেকে বিভিন্ন উপায়ে আয় করা যায় তার মধ্যে জনপ্রিয় মাধ্যম গুলো হলঃ
  • ব্লগিং
  • ইউটিউবিং
  • ফ্রিল্যাসিং
  • গ্রাফিক্স ডিজাইন
  • লেগো ডিজাইন
  • ওয়েবসাইট ডিজাইন
  • ওয়েব ডেভেলপমেন্ট
  • ডিজিটাল মার্কেটিং
  • সোস্যাল মিডিয়া মার্কেটিং
  • অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং
  • আর্টিকেল লিখে আয়
  • সার্ভে করে আয়
  • ই কমার্স ব্যবসা
এগুলার মধ্যে যেকোন একটি বিষয়ের উপরে দক্ষতা অর্জন করে বা আপনার দক্ষতা থাকলে আপনি সেই বিষয়ের উপরে অনলাইনে আয় করে আপনি অনলাইনে ক্যারিয়ার গড়তে পারবেন।

  • অনলাইন থেকে আয় করতে হলে আমার কি কি করতে হবে?
অনলানে আয় করব কথাটি ভাবতেই নিজের মধ্যে একটা আলাদা অনুভূতি  তৈরী হয়। মনে প্রশ্ন জাগে সত্যি! আমিও কি  পারব অনলানে আয় করতে? হ্যাঁ!   দক্ষতা থাকলে এবং যদি আপনার ধৈর্য ও পরিশ্রম করার মানসিকতা থাকে, তাহলে আপনি অনলানে আয় করতে পারবেন।

অনলাইনে আয় করতে চাইলে আপনাকে যা করতে হবেঃ

ধৈর্যশীল ও পরিশ্রমী হতে হবেঃ যারা অনলানে আয় করে সাফল্য অর্জন করেছেন, তারা কিন্তু  একদিনে বা রাতারাতি সাফল্য অর্জন। অবশ্যই ধৈর্য ও পরিশ্রমের কারনেই তারা আজ সাফল্যের মুখ দেখেছেন। তারা যদি ধৈর্য  মাঝপথে পরিশ্রম করা বন্ধ করে দিত তাহলে হয়ত তারা এই সফলতা অর্জন করতে পারত না। আমরা হয়ত শুধু সফল ফ্রিল্যাসারদের গল্প শুনি, কিন্তু বাস্তবিক ভাবে ভাবতে গেলে আজ যদি বিশ্বে ১০০ জন ফ্রিল্যার থাকে। তাহলে হয়ত ৪০০ জনের ও বেশি লোক এই পথে হেঁটে এসেছে। যার ধৈর্য ধরে পরিশ্রম তারই হয়ত ১০০ জনের ভিতরে স্থান পেয়েছেন। আর যারা ধৈর্য  ধরতে পারেন নি তারা অনলাইনে আয় করে ক্যারিয়ার গড়তে পারেন নি। সুতরাং অনলাইনে আয় করতে হলে আপনাকে অবশ্যই ধৈর্য ধরে কাজ করে যেতে হবে। আর পরিশ্রম সৌভাগ্যের প্রসূতি আমরা সবাই জানি। অনলাইনে আয় করা সহজ কিন্তু আপনাকে  কেউ ফ্রি টাকা দিবে না নিশ্চয়। অবশ্যই আপনাকে পরিশ্রম করতে হবে।

  • আমার অনলাইনে আয় শুরু হতে কত ‍দিন সময় লাগতে পারে?
অনলাইনে আয় শুরু হতে কত দিন সময় লাগতে পারে এই প্রশ্নের উত্তরে বলতে গেলে আমি বলব,  এটার কোন নির্দিষ্ট সময় নেই, একেবারেই অনিশ্চিত, অনেকের হয়ত খুব দ্রুত আয় শুরু হয়। আবার অনেকের তিন থেকে ছয় মাসেরও বেশি সময় লাগে। এটা সম্পূর্ণ নির্ভর করে আপনার দক্ষতা ও পরিশ্রমের উপর। আপনি প্রতিদিন কতটুক সময় দিচ্ছেন অনলাইনে আয় করার জন্য। অর্থাৎ, আপনি যত বেশি দক্ষ হবেন, যত বেশি সময় দিবেন ততদ্রুত আপনার আনলানে আয় শুরু হবে এবং আপনি তাত বেশি আয় করতে পারবেন।

  • অনলাইন থেকে মাসে কত টাকা আয় করা সম্ভব?
অনলাইনে আপনি মাসে কত টাকা ইনকাম করতে পারবেন সেটা সম্পূর্ণ নির্ভর করে আপনি যে বিষয়ের উপরে কাজ করেন। কারনঃ অনলাইনে বিভিন্ন ধরনেক কাজ আছে সেক্টর ভেদে  একেক ধরনের কাজের ডিমান্ড একেক রকমের। যেমন  একজন ওয়েব ডিজাইনার ওয়েব  তার কাজের জন্য প্রতি ঘন্টা হিসেবে ৫০ থেকে ১০০ ডলার পর্যন্ত পারিশ্রমিক পেয়ে থাকেন। অন্য দিকে একজন আর্টিকেল রাইটার হয়ত ৫ থেকে ১০ ডলার আয় করে থাকেন। সাধারণত ফ্রিল্যাসার রা মাসে ২৫ হাজার  টাকা থেকে ২ লক্ষ টাকা পর্যন্ত  আয় করে থাকেন। কেউ কেউ হয়ত এর বেশিও আয় করেন। এটা সম্পূর্ন নির্ভর করে আপনার কাজের ধরন, দক্ষতা ও পরিশ্রমের উপর।
তাছাড়া মনে রাখবেন আজ যার মাসে অনলাইন থেকে লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করছেন তারা কিন্তু প্রথম দিন থেকেই এত টাকা আয় করেন। প্রতি মাসে লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করার জন্য অনেকের কয়েক বছর সময় লেগে গিয়েছে অনেরে হয়ত এ যুগ লেগেছে। তাই শুরুর দিকে যদি আপনি চিন্তা করেন লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করার সেটা কি সম্ভব? ধৈর্য ধরে পরিশ্রম করে যান আপনিও হয়ত একদিন মাসে লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করতে পারবেন।

  • অনলাইন থেকে আয় করার জন্য শিক্ষাগতযেগ্যতা কি লাগবে?
অনলাইনে  আয় করতে হলে আপনার কোন একাডেমিক সার্টিফিকেট লাগবে না। কি আপনাকে অবশ্যেই শিক্ষিত হবে হবে। অর্থাৎ, আপনি পড়াশুনা করেছেন বা কোন বিষয়ের উপরে রিসার্চ করেছেন  কিন্তু আপনার কোন একাডেমিক সার্টিফিকেট সে ক্ষেত্রে কি আপনাকে অশিক্ষিত বলা যায়?

অনলাইনে আয় করার জন্য আপনার যে বিষয় গুলো সম্পর্কে জ্ঞান থাকা উচিতঃ

  • আপনার ইন্টারনেট সম্পর্কে স্বচ্ছ ধারণা থাকতে হবে।
  • ওয়েবসাইট সম্পর্কে  ধারণা থাকাও আবশ্যক।
  • আপনি যে বিষয়টি নিয়ে কাজ করতে চাচ্ছেন অর্থাৎ ব্লগিং,ইউটিউবিং,গ্রাফিক্স ডিজাইন , ইত্যাদি সে বিষয়ে স্বচ্ছ ধারণা থাকতে হবে।
  • কিভাবে কাজ করতে হবে সে বিষয়ে জ্ঞান অর্জন করতে হবে
  • কোথায় কাজ করবেন সেটার রিয়েল নাকি ফেক সেটি যাচাই করার ক্ষমতা অর্জন করতে হবে
  • দ্রুত সিদ্ধান্ত নেওয়ার ক্ষমতা থাকতে হবে
  • অনলাইনে বিভিন্ন বিষয় খুঁজে বের করার দক্ষতা থাকতে হবে

  • অনলাইনে আয় করার জন্য ইংরেজি জানা কি আবশ্যক?
আমরা সবাই জানে অনলাইনে সবচেয়ে বেশি ব্যবহৃত ভাষা হল ইংরেজি। এবং আমরা অনলাইনে  যে কাজ গুলো করে থাকি তার প্রায় সবই বাইরের কোন রাষ্ট্রের সুতরাং আপনার ক্লাইন্ট বা কাস্টমারের সাথে যোগাযোগ  করতে হলে আপনাকে অবশ্যই ইংরেজি জানতে হবে। আর তাছাড়া অললাইনে কাজ করার জন্য প্রায় সকল ক্ষেত্রে আপনার  ইংরেজি জানা আবশ্যক।
আপনি যদি সতিই অনলাইন থেকে আয় করার কথা ভাবেন। তাহলে আশাকরে এই পোস্ট টি আপনার উপকারে আসবে। পোস্টটি পড়ে যদি আপনার ভাল লেগে থাকে তাহলে বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না। আর পোস্টটি সম্পর্কে আপনার কোন মতামত থাকলে অবশ্যই কমেন্ট সেকশনে গিয়ে কমেন্ট করে জানাতে পারেন।

11 thoughts on “অনলাইনে কিভাবে টাকা আয় করা যায়। (How to earn money online)”

  1. আপনার মন্তব্য-এর জন্য ধন্যবাদ। সমকালীন বিষয় ভিত্তিক ও তথ্য-প্রযুক্তি বিষয়ক টিপস এবং ট্রিকস আমাদের ব্লগটি নিয়মিত ভিজিট করুন।

  2. আপনার মন্তব্য-এর জন্য ধন্যবাদ। সমকালীন বিষয় ভিত্তিক ও তথ্য-প্রযুক্তি বিষয়ক টিপস এবং ট্রিকস আমাদের ব্লগটি নিয়মিত ভিজিট করুন।

Leave a Comment

Your email address will not be published.

Scroll to Top