খুব সহজেই মোবাইল দিয়ে লগো ডিজাইন করার সফটওয়্যার

আপনি কি জানেন মোবাইল দিয়ে লোগো ডিজাইন করার নিয়ম গুলো কি কি? যদি জেনে না থাকেন তাহলে চিন্তার কোন কারণ নেই কারণ আজকের এই আর্টিকেলটিতে আমি আপনাদেরকে জানাবো মোবাইল দিয়ে কিভাবে লোগো তৈরি করব এই সম্পর্কে। বিশ্বের প্রত্যেকটি কম্পানি এর ব্লগ এবং ইউটিউব চ্যানেলে লীগ তাদের নিজস্ব একটি লোগো রয়েছে। লোগো মূলত একটি কোম্পানি থেকে আরেকটি কোম্পানি কে আলাদা করে চিহ্নিত করার জন্য একটি চিহ্ন যা প্রতিষ্ঠানের নামে করা হয়। এখন প্রশ্ন হলো কিভাবে লোগো ডিজাইন করা হয়? বেশিরভাগ বড় বড় কোম্পানির লোগো ডিজাইন করার জন্য বিভিন্ন গ্রাফিক্স ডিজাইনারের সাহায্য নিয়ে থাকে।

একজন ভাল মানের graphic-designer খুব সহজেই তার কোম্পানীর জন্য একটি সুন্দর ও আকর্ষণীয় লোগো ডিজাইন তৈরি করে দিতে পারেন। লোগো বানানোর নিয়ম গুলো জানা থাকলে আপনিও চাইলে ছোটখাটো সহজ সরল একটি লোগো তৈরি করতে পারবেন। আজকাল লোগো বানানোর জন্য কম্পিউটার প্রয়োজন হয়না ফোনেও এমন কিছু অ্যাপস বের হয়েছে যার মাধ্যমে আপনি চাইলে সহজেই লোগো বানিয়ে নিতে পারবেন এমনকি এর মাধ্যমে আপনি চাইলে ইনকাম করতে পারবেন। লোগো তৈরি করার নিয়ম গুলো জানা থাকলে যে কেউ চাইলে ফোন দিও এটি তৈরি করতে পারে। তোমাকে তাহলে কথা না বাড়িয়ে জেনে নেওয়া যাক ফ্রী লোগো ডিজাইন কিভাবে করতে হবে এবং লোগো ডিজাইন সফটওয়্যার গুলো কি কি।

খুব সহজেই মোবাইল দিয়ে লগো ডিজাইন করার সফটওয়্যার সম্পর্কে জেনে নিন এখনই

 

 মোবাইল দিয়ে লোগো ডিজাইন করার  সফটওয়্যার

অনলাইনে লোগো তৈরীর মাধ্যমে আজকাল অনেক মানুষ ইনকাম করার রাস্তা বের করছে। আপনিও চাইলে লোগো তৈরী করা শিখে মোবাইল দিয়ে সহজেই লোগো তৈরি করতে পারবেন এবং তা অনলাইনে বিক্রি করতে পারবেন। মোবাইল দিয়ে লোগো ডিজাইন করার অনেক ফ্রি সফটওয়্যার রয়েছে যেগুলো ব্যবহার করে আপনি চাইলে অনেক ধরনের লোগো বানিয়ে ফেলতে পারবেন। ফ্রী লোগো ডিজাইন করে তার মাধ্যমে যদি ইনকাম করা যায় তাহলে ব্যাপারটা কিন্তু খারাপ নয়। মোবাইল দিয়ে লোগো ডিজাইন করা শিখে আপনি চাইলে সবার জন্য শিক্ষা লোগো এবং সামাজিক সংগঠনের লোগো খুব সহজেই তৈরি করে ফেলতে পারবেন। চলুন তাহলে জেনে নেয়া যাক মোবাইল দিয়ে লোগো তৈরির সফটওয়্যার গুলো কি কি এবং তা কিভাবে ব্যবহার করতে হয়।

লোগো তৈরি সফটওয়্যার

ফ্রী লোগো ডিজাইন করার জন্য মোবাইলে বেশকিছু অ্যাপস রয়েছে। অনলাইনে লোগো তৈরি করার জন্য আপনাকে আগের লোগো তৈরির সফটওয়্যার ডাউনলোড করে নিতে হবে। চলুন জেনে নেওয়া যাক লোগো ডিজাইন সফটওয়্যার গুলো কি কি এবং এই সফটওয়্যার গুলো ব্যবহার করে কিভাবে লোগো ডিজাইন করা হয়

Logo Maker

অত্যন্ত সুন্দর সহজ ও কার্যকরী একটি লোগো ডিজাইন অ্যাপস হচ্ছে লোগো মেকার। লোগো ডিজাইন সফটওয়্যার টি ব্যবহার করে আপনি খুব সহজে উন্নতমানের ও সুন্দর সুন্দর লোগো তৈরি করে ফেলতে পারবেন। এমনকি এই সফটওয়্যার দিয়ে তৈরিকৃত লোগো আপনি চাইলে মার্কেটপ্লেসে বিক্রিও করতে পারবেন। এই সফটওয়্যার টি তে রয়েছে লোগোর আকার নির্ধারণ, ধারণ, রং, পিএনজি, পিকচার্ট ইত্যাদি বিভিন্ন টুলস। আবার এই অ্যাপসটিতে লোগোতে বিভিন্ন লেখার জন্য পন্ট নির্ধারণ করার টুলস রয়েছে। মূলত আপনি যদি এই এপস গুলোর মধ্যে থাকার টুলস গুলোর ব্যবহার ভালোভাবে শিখে যান তাহলে খুব সহজেই একটি উন্নতমানের লোগো তৈরি করতে পারবেন। এর মধ্যে থাকা টুলসগুলো ব্যবহারে আপনি যত বেশি দক্ষ হবেন তত আপনার কাজের মান ভাল হবে এবং সেসব লোগো মার্কেটপ্লেসে বিক্রির উপযোগী হয়ে উঠবে।

Logopit plus

মোবাইল দিয়ে লোগো ডিজাইন করতে এই অ্যাপসটি ও দারুন কাজ করে। অ্যাপস দিয়ে খুব দ্রুত উন্নতমানের লোগো তৈরি করা যায়। এছাড়াও এই অ্যাপসটির একটি বিশেষত্ব রয়েছে যারা মূলত কম্পিউটারে এটি ব্যবহার করতে  অভ্যস্ত তারা চাইলে ফোনেও এটি কম্পিউটারের মতো করে ব্যবহার করতে পারবে। আপনি যদি সবার জন্য শিক্ষা লোগো তৈরী করতে চান তাহলে এই অ্যাপস দিলে খুব সহজে এটি তৈরি করতে পারবেন। এই অ্যাপসটি লোগো তৈরি করে মার্কেটপ্লেসে আপনি চাইলে অনেক টাকা ইনকাম করতে পারবেন। তবে হ্যাঁ অবশ্যই কাজ করে ইনকাম করার আগে আপনাকে অবশ্যই আগে কাজ শিখে নিতে হবে অর্থাৎ এই অ্যাপসে থাকা টুলস গুলোর ব্যবহার শিখে নিতে হবে। আপনি যদি কয়েকদিন একটু ধৈর্য্য সহকারে এই অ্যাপসে থাকা টুলসগুলো ব্যবহার নিজের আয়ত্বে নিয়ে আসতে পারেন তাহলে লোগো ডিজাইন করে আপনার ইনকাম করার রাস্তা সহজ হয়ে যাবে।

FixelLab

বর্তমানে ফোনে লোগো ডিজাইন করার জন্য সবচাইতে জনপ্রিয় একটি অ্যাপস হচ্ছে পিক্সেল ল্যাব। এই অ্যাপটি দিয়ে আপনি চাইলে খুব সহজেই সামাজিক সাংগঠনেৱ লোগো তৈরি করে ফেলতে পারবেন। এই অ্যাপসটি মূলত সাংগঠনিক ব্যানার তৈরিতে বেশি কাজে আসে। এছাড়াও এটি ইউটিউব থামলেন তৈরিতে সাহায্য করে এবং বিভিন্ন ধরনের কভার পিকচারও তৈরি করা যায়। মূলত সাংগঠনিক বিভিন্ন ব্যানার এর লোগো তৈরি করতে এই অ্যাপসের কোনো জুড়ি নেই। এই অ্যাপসটি বর্তমানে বিপুল জনপ্রিয়তা লাভ করেছে। বেশিরভাগ মানুষ যারা ফোনে লোগো তৈরি করে ইনকাম করতে চায় তারা এই অ্যাপসটি ব্যবহার করে থাকে।
সুতরাং সর্বশেষে বলা যায় যে ফোন দিয়েও আপনি চাইলে বিভিন্ন এপস এর মাধ্যমে উন্নত মানের বিভিন্ন লোগো তৈরি করতে পারবেন এবং তা মার্কেটপ্লেসে বিক্রি করে আয় করতে পারবেন। তাহলে দেরি না করে আজই ডাউনলোড করে নিন বিভিন্ন ফোনে লোগো তৈরি অ্যাপস এবং জেনে নিন এর ব্যবহার। তারপর নিজের বুদ্ধি এবং ধৈর্য কে কাজে লাগিয়ে আপনিও হয়ে উঠুন একজন লোগো ডিজাইনার।

লোগো ডিজাইনের ক্ষেত্রে যা যা করা উচিত নয়

উন্নত মানের লোগো তৈরি করার জন্য আপনাকে অবশ্যই কিছু বিষয় লক্ষ্য রাখতে হবে। লোগো ডিজাইনের ক্ষেত্রে এমন কিছু কাজ রয়েছে যা আপনাকে বর্জন করতে হবে। অনেক সময় আমরা  লোগো কে অতিরিক্ত ডিজাইন করে ফেলি যার ফলে লোগো তার ব্র্যান্ডিং সহজেই হারিয়ে ফেলে এবং তা মার্কেটপ্লেসে বিক্রির উপযোগী আর থাকেনা। লোগো তৈরি ক্ষেত্রে আপনাকে অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবে যে আপনার লোগোটি যা বোঝাতে চাচ্ছে অতিরিক্ত ডিজাইন করার কারণে যাতে সেটি কোন ভাবেই তার তাৎপর্য বা মর্ম হারিয়ে না বসে। আপনি যদি একটি উন্নতমানের লোগো তৈরী করতে চান তাহলে আরও বেশ কিছু বিষয় রয়েছে যেগুলো আপনাকে অবশ্যই পরিহার করতে হবে। চোদোন নিচে জেনে নেওয়া যাক লোগো তৈরি সময় কি কি ডিজাইন আপনাৱ করা উচিত নয়:
  • যতটুকু প্রয়োজন ঠিক ততটুকুই ডিজাইন করতে হবে প্রয়োজনের বাইরে ডিজাইন করা যাবেনা।
  • অতিরিক্ত কালার করার ফলে লৌহ তার তাৎপর্য হারিয়ে ফেলতে পারে তাই অতিরিক্ত কালার করা পরিহার করতে হবে।
  •  ফন্ট স্টাইল 2 এর মধ্যেই রাখতে হবে।
  • চেষ্টা করতে হবে যত কম সব দোলগতি ইউজ করা যায় ততই ভালো।
  • সহজবোধ্য ডিজাইন তৈরি করতে হবে সেটা যাতে কোনভাবে যদি না হয় খেয়াল রাখতে হবে।
  •  যতটা সম্ভব শ্যাডো যুক্ত করা পরিহার করতে হবে।
  • প্রয়োজন ছাড়া ক্লিপ আর্ট ব্যবহার করা যাবে না।
  •  রাস্টার ইমেজের ব্যবহার অবশ্যই আপনাকে পরিহার করতে হবে
  •  লোগো তৈরি সময় খেয়াল রাখতে হবে যাতে কোনভাবে পুরনো কোন ডিজাইন না করা হয় সমসাময়িক ডিজাইন করাই ভালো।
  • লোগো এমন হতে হবে যাতে সেটা খুব বেশি সোজাসাপ্টা ও না হয়ে যায় আবার খুব বেশী জটিল ও না হয়ে যায়।

পরিশেষে,

সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ে আপনি নিশ্চয় এতক্ষণে মোবাইল দিয়ে লোগো ডিজাইন করার সফটওয়্যার সম্পর্কে ধারণা পেয়ে গেছেন। সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি যদি আপনি মনোযোগ সহকারে পড়ে থাকেন তাহলে আশা করছি লোগো ডিজাইন সফটওয়্যার নিয়ে আপনাদের আর কোন প্রশ্ন নেই। আজকের মতো এই আর্টিকেল এখানেই শেষ করছি। আবারো খুব শীঘ্রই আপনাদের সাথে নতুন কোন আর্টিকেল নিয়ে হাজির হব। সেই পর্যন্ত ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন।

Leave a Comment

Your email address will not be published.

Scroll to Top