বিজয় কিবোর্ড ডাউনলোড ও ইন্সস্টল করার নিয় for pc | Windows10/8/7

বিজয় বায়ান্ন একটি সিস্টেম ইউটিলিটি যা আপনাকে আপনার কীবোর্ড দিয়ে সরাসরি বাংলা অক্ষর টাইপ করতে সাহায্য করে। Bijoy keyboard টি তৈরি করেছেন মোস্তফা জব্বার যা 2009 সালে মুক্তি পেয়েছিলো, এই সুবিধাজনক প্রোগ্রামটি একটি বাংলা টাইপিং সফটওয়্যার যা ইউনিকোডের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ বাংলা এবং বাংলা ফন্ট প্রদান করে। এটি প্রকৃতিতে অভ্র কীবোর্ডের অনুরূপ-তবে, এটি একটি ওপেন-সোর্স প্রোগ্রাম নয় এবং বেশিরভাগ বিকাশকারীদের জন্য নমনীয় হতে পারে না। বিজয় ৫২ কিবোর্ড ডাউনলোড করার মাধ্যমে আপনি খুব সহজেই আপনার পিসিতে বাংলা টাইপ করতে পারবেন।

এছাড়াও ফোনের জন্য রয়েছে বিজয় কিবোর্ড app এটি ব্যবহার করে আপনি চাইলে মোবাইল দিয়েও খুব সহজেই বাংলা টাইপিং করতে পারবেন। আজকের এই আলোচনাটি মূলত বিজয় 52 কিবোর্ড ডাউনলোড করা নিয়ে। চলুন তাহলে কথা না বাড়িয়ে নিচে বিস্তারিত আলোচনা থেকে জেনে নেওয়া যাক কিভাবে বিজয় কিবোর্ড ডাউনলোড for pc করতে হবে। এছাড়া আজকের আলোচনাটি মনোযোগ সহকারে পড়লে আপনি কিভাবে বিজয় কিবোর্ড ডাউনলোড for Windows 7 করতে হয় এ ব্যাপারে ও আইডিয়া পাবেন। এছাড়া আপনি আজকের এই আর্টিকেলটি থেকে আরও জানতে পারবেন How to download bijoy 52 in windows 7, 8 & 10।

বিজয় কিবোর্ড ডাউনলোড ও ইন্সস্টল করার নিয় for pc | Windows10/8/7

কিভাবে বিজয় বায়ান্ন ডাউনলোড করবো: বিজয় কিবোর্ড ডাউনলোড for pc

বাংলা টাইপিং এর জন্য সবচাইতে বেস্ট একটি কিবোর্ড হচ্ছে Bijoy keyboard। আপনারা যারা বিজয় কিবোর্ড ডাউনলোড for Windows 10 সম্পর্কে জানতে চেয়েছেন তাদের জন্য আজকের এই আর্টিকেলটি বেশ উপকারে আসবে।  বিজয় 52 কিবোর্ড প্রোগ্রামটির কিছু বিশেষ মৌলিক বৈশিষ্ট্য রয়েছে। আপনি চাইলে এই কিবোর্ডটি সহজেই অফলাইনেও ব্যবহার করতে পারবেন। এবং আপনি নন-ইউনিকোড বা ANSI-তে সামঞ্জস্য পরিবর্তন করতে পারবেন কোন রকম কোন ঝামেলা ছাড়াই। উপরন্তু, এর জন্য পিডিএফ টাইপিং শীট রয়েছে, যা আপনি সবকিছু বানান ছাড়াই শব্দ বা বাক্যাংশ লিখতে অনুসরণ করতে পারেন। যাইহোক, এগুলি প্রোগ্রামের সাথে আসে না এবং শুধুমাত্র অনলাইনে দেওয়া হয়।

এই  কিবোর্ডটি ইনস্টল করা বেশ সহজ। ফাইলটি আনজিপ করার পরে, আপনাকে EXE ফাইলটি চালু করতে হবে, যা ইনস্টলেশন শুরু করবে। মনে রাখবেন যে আপনাকে Microsoft .NET Framework 3.5 ইনস্টল করতে হবে—অন্যথায়, আপনাকে প্রথমে এটি  ইনস্টল করতে বলা হবে। তারপরে, আপনি ইনস্টলেশন প্রক্রিয়ার জন্য আপনার অপারেটিং সিস্টেম চয়ন করতে পারেন, প্রোগ্রামটি শেষ হয়ে গেলে চালাতে পারেন এবং অন্তর্ভুক্ত পাঠ্য নথিতে পাওয়া অ্যাক্টিভেশন কী ইনপুট করতে পারেন।

সর্বোপরি,  যারা বাংলা অক্ষর টাইপিং করতে চান তাদের জন্য বিজয় বায়ান্ন একটি সহজ উপযোগিতা। এই সফ্টওয়্যারটি ব্যবহারের সময় আপনি কিছু বৈশিষ্ট্যৱ অভাব অনুভব করতে পারেন, কারণ এটিতে অন্যান্য অনুরূপ প্রোগ্রামগুলির মতো আরও উন্নত বৈশিষ্ট্য নেই। এছাড়াও, এটি কোডিংয়ের সাথে সহজে কনফিগারযোগ্য নয়, যা অন্যান্য প্রোগ্রামগুলিকে যারা আরও বহুমুখিতা খুঁজছেন তাদের জন্য একটি ভাল পছন্দ করে তোলে। আপনি যদি একটি সহজ টুল চান, যদিও, যেটি দিয়ে আপনি মোটামুটি বাংলা টাইপিং করতে পারবেন তাহলে বিজয় 52 কিবোর্ড টি আপনার জন্য একদম পারফেক্ট।

বিজয় ৫২ সফ্টওয়্যার ইন্সস্টল করার নিয়ম

আমি বিজয় ৫২ ডাউনলোড করার পর ফাইলটি জিপ আকারে দেখতে পাবেন । প্রথমে আপনাকে এই ফাইলটি আনজিপ করতে হয়ে। আনজিপ করার জন্য WinRAR অথবা 7-Zip সফ্টওয়্যার ডাউনলোড করে ইন্সস্টল করে নিন। আপনার কম্পিউটারে যদি আগে থেকেই এই সফ্টওয়্যায় ইন্সস্টল করা থেকে থাকে তাহলে তো ভালই হল। বিজয়-৫২ সফ্টওয়্যার জিপ ফাইলটি আনজিপ করার জন্য প্রথমে ফাইলটিকে সিলেক্ট করুন এরপর মাউস এর রাইট বাটন-এ ক্লিক করুন। Extract files বা Extract here ক্লিক করুন। বিজয় ৫২ ডাউনলোড করা জিপ ফাইলটি আনপিজ হয়ে যাবে।

Extract files বা Extract here

 

এখন চলুন দেখে নেওয়া যাক কিভাবে বিজয় ৫২ সফ্টওয়্যার আপনার কম্পিউটারে ইন্সস্টল ও এক্টিভ করবেন।

বিজয় ৫২ সফ্টওয়্যার ইন্সস্টল ও এক্টিভ করার নিয়ম

আপনি ফাইলটি আনজিপ করার পর কতগুলো ফাইল ও ফোল্ডার দেখতে পাবেন। সেখান থেকে Bayanno2016.exe অ্যাপ্লিকেশ ফাইলটি ওপেন করুন। আপনি নিচের ছবির মত একটি ইন্টারফেস দেখতে পাবেন। সেখান থেকে আপনি যদি ইউন্ডোজ-10/8-এ ইন্সস্টল করতে চান তাহলে ইউন্ডোজ-8 অপশনে ক্লিক করুন। আর  যদি ইউন্ডোজ-7 এ বিজয় বায়ান্নো ইন্সস্টল করতে চান তাহলে ইউন্ডোজ এক্সপি/সেভেন অপশনে ক্লিক করুন।

বিজয় ৫২ সফ্টওয়্যার ইন্সস্টল ও এক্টিভ করার নিয়ম

 

 

বিজয় বায়ান্নো সফ্টওয়্যার এক্টিভ করবেন যেভাবে

বিজয় বায়ান্নো সফ্টওয়্যার ইন্সস্টল করার পর সফ্টরটি ওপেন করার পর আপনি নিচের ছবির মত দেখতে পাবেন। এখানে এখন আপনাকে সিরিয়াল কোড বসিয়ে  এক্টিভ করতে হবে।

বিজয় বায়ান্নো সফ্টওয়্যার এক্টিভ করবেন যেভাবে

 

 

আপনি যে ফাইল গুলো আনজিপ করেছেন সেখানে SL.txt নামে একটি টেক্সট ফাইল দেখতে পাবেন। ফাইলটি ওপেন করলে আপনি কতগুলো সিরিয়াল কোড দেখতে পাবেন। এখান থেকে একটি সিরিয়াল কোড বসিয়ে এক্টিভ বাটন-এ ক্লিক করলে। আপনার কম্পিউটারে বিজয় বায়ানো সফ্টওয়্যারটি এক্টিভ হয়ে যাবে।

বিজয় 52 সফটওয়্যার ইন্সটল করার সুবিধা

বাংলাদেশের মানুষদের জন্য সর্বাধিক প্রচলিত একটি ভাষা হচ্ছে বাংলা। এটি বাংলাদেশের রাষ্ট্রভাষা হিসেবে পরিচিত। বাংলাদেশের বেশিরভাগ মানুষই এ ভাষায় কথা বলে থাকে। যেহেতু বাংলা লেখার পদ্ধতি বা স্ক্রিপ্ট হল একটি কার্সিভ ধরনের স্ক্রিপ্ট তাই এইভাবে বেশিরভাগ কম্পিউটার সিস্টেমে ডিফল্টরূপে পাওয়া যায় না। সৌভাগ্যবশত, বাংলা টাইপিং সফটওয়্যার বিভিন্ন আকারে পাওয়া যায়। এর মধ্যে একটি হল বিজয় বায়ান্ন কিবোর্ড। বিজয় 52 কিবোর্ড ব্যবহার করা অনেক সহজ এবং এই কীবোর্ড আপনাকে বাংলা এবং ইংরেজির মধ্যে দ্রুত পরিবর্তন করতে সাহায্য করবে।

আমরা যারা বাংলাদেশে বসবাস করি তাদের ইংরেজি লেখার পাশাপাশি অনেক সময় বাংলা লেখার প্রয়োজন হয়ে থাকে বিশেষ করে যারা কম্পিউটারে বিভিন্ন কাজ করে থাকে। আর এই বাংলা লেখার জন্য বর্তমানে বাংলাদেশ সবচেয়ে জনপ্রিয় একটি কিবোর্ড বা সফটওয়্যার হচ্ছে বিজয় বায়ান্ন। তাই আমি আজ আপনাদের জন্য নিয়ে এসেছি বিজয় বায়ান্নর সব চাইতে লেটেস্ট সংস্করণ বিজয় বায়ান্ন । যারা ডাউনলোড করতে চান তারা ডাউনলোড লিংকে ক্লিক করে বিজয় বায়ান্ন ডাওনলোড এবং ইনস্টল করুন। Bijoy keyboard এৱ বিশেষ কিছু সুবিধা আছে নিচে সে সুবিধা গুলো দেয়া হলো। যেমন –

১. বিজয় 52 কিবোর্ড ব্যবহার করার মাধ্যমে আপনি চাইলে সরাসরি সরাসরি ইউনিকোড ফন্টে লিখতে পারবেন।

২. সরাসরি ইন্টারনেটে ইউনিকোডের মাধ্যমে লেখার জন্য বিজয় 52 অনেক উপকারী। ৩. বিজয় 52 কিবোর্ড আপনার পিসিতে ইন্সটল করা থাকলে আর আপনাকে অভ্র ইনস্টল  করতে হবে না।

৪.এইটি এক্সপি বা windows 7, 8 & 10

উভয়ের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য।

গুগল ড্রাইভ থেকে ডাউনলোড করার নির্দেশনা

QWERTY কীবোর্ড ব্যবহার করার মাধ্যমে আপনি যদি বাংলা বর্ণমালা টাইপ করতে চান তাহলে বিজয় 52 হচ্ছে আপনার জন্য সবচাইতে বেস্ট একটি প্রোগ্রাম। এই প্রোগ্রামের মাধ্যমে আপনি চাইলে সহজেই বাংলা টাইপিং করতে পারবেন। বিজয় 52 সফটওয়্যার দিয়ে আপনি চাইলে মাইক্রোসফট অফিস ওয়ার্ড, পাওয়ারপয়েন্ট, ইন্টার্নেট ব্রাউজার এবং আরো অনেকগুলো অ্যাপ্লিকেশনের মধ্যে বাংলা টাইপ করতে পারবেন। আপনি যদি গুগল ড্রাইভ থেকে বিজয় 52 কিবোর্ড ইন্সটল করতে চান তাহলে নিচের দেয়া প্রক্রিয়া অনুসরণ করুন।

আপনি যখন গুগল ড্রাইভ থেকে বিজয় 52 ডাউনলোড করার জন্য লিংকটিতে ক্লিক করবেন তখন আপনাকে বলা হবে গুগল ড্রাইভ ফাইল দিয়ে অ্যাক্সেস করার জন্য অনুমতি নিতে (You need access! Ask for access, or switch to an account with access.)। আর যখন এটা নিজের লেখা নীল বাটনটিতে আপনি ক্লিক করবেন তখন ড্রাইভ রিকুয়েস্ট পাঠিয়ে দিবে এবং আপনার সামনে এই মেসেজটি শো করবে- Request Sent! You’ll get an email letting you know if the file is shared with you. তারপর আপনি যাতে সহজেই ফাইল টি ডাউনলোড করে নিতে পারেন তার জন্য আপনাকে যত দ্রুত সম্ভব এক্সেস দিয়ে দেওয়া হবে।

পরিশেষ,

কম্পিউটার যদি আপনি কখনো বাংলা টাইপিং করার প্রয়োজন হয় তাহলে অবশ্যই বাংলা টাইপিং সফটওয়্যার বিজয় 52 আপনার পিসিতে ইন্সটল থাকা লাগবে। আজকের এই আর্টিকেলটি পড়ে আপনি নিশ্চয়ই বুঝতে পেরেছেন বিজয় কিবোর্ড ডাউনলোড for pc কিভাবে করতে হবে। উপরে বর্ণিত নিয়মে আপনি চাইলে সহজেই বিজয় কিবোর্ড টি ডাউনলোড করে নিতে পারবেন। বিজয় কিবোর্ড টি ডাউনলোড করার পর ইন্সটল করার প্রক্রিয়াৱ একটি নির্দেশিকা দেওয়া সেখানে দেয়া থাকবে তা দেখে আপনি সহজেই বুঝে নিতে পারবেন। আশা করছি বিজয় 52 কিবোর্ড ডাউনলোড সম্পর্কে আপনাদের আর কোন কিছু জানার নেই। এরপরেও যদি বিজয় কিবোর্ড ডাউনলোড for pc সম্পর্কে আপনাদের আর কোন প্রশ্ন থেকে থাকে তাহলে এখনি তা আমাদের কমেন্ট করে জানিয়ে দিন। আমরা চেষ্টা করব যত দ্রুত সম্ভব আপনার প্রশ্নের উত্তর দেওয়ার। আবারও খুব শীঘ্রই নতুন কোন আর্টিকেল নিয়ে আপনাদের সামনে হাজির হবো। সেই পর্যন্ত ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন। আজ এখানেই বিদায় নিচ্ছি।

Leave a Comment

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Scroll to Top