Best Blog 24 https://www.bestblog24.com/2021/05/how-to-create-youtube-video.html

যে ভাবে ইউটিউব ভিডিও তৈরী করবেন। How to create youtube video.

অনলাইন এবং অফলাইনে কীভাবে একটি আকর্ষণীয় ভিডিও তৈরি করবেন? একটি ভিডিও তৈরি করা অত্যন্ত চ্যালেঞ্জপূর্ণ কারণ ভিডিওটির মাধ্যমে আমরা আমাদের শ্রোতাদের কাছে একটি গল্প বলতে পারি, শ্রোতার কাছে আমরা বিভিন্ন বার্তা পৌছে দিতে পারি, আমরা ভিডিওর মাধ্যমে আমাদের ব্যবসা বা পণ্য প্রচার করতে পারি। আপনি যদি কোনও ভিডিও তৈরি করতে চান তবে আপনাকে অবশ্যই সৃজনশীল হতে হবে কারণ একটি গল্প বলা বা কোনও পণ্য বা ব্যবসায়ের প্রচার করা কোনও বড় বিষয় নয় তবে আপনি কীভাবে আপনার গল্পটি বলছেন, কোন ধরনের পণ্য বা ব্যবসায়কে প্রচার করবেন পাশাপাশি এটি অবশ্যই একই সময়ে জড়িত থাকতে হবে ।

ভিডিও তৈরির জন্য আপনার কোনও হলিউড ধরণের স্টুডিও দরকার নেই যদি আপনার বাজেট কম হয় তবে আপনি আপনার স্মার্টফোন দিয়ে ভিডিও গুলি করতে বা ভিডিও তৈরি করতে পারেন এবং আপনার ভিডিওগুলি তৈরী করার সময় আপনার অবশ্যই সৃজনশীল হতে হবে।

যে ভাবে ইউটিউব ভিডিও তৈরী করবেন। How to create youtube video.

ভিডিও  তৈরী কারার জন্য আপনার যেসব জিনিস গুলির প্রয়োজন

১. একটি ক্যামেরা (আপনি চাইলে আপনার স্মার্ট ফোন ব্যবহার করতে পারেন)

২.  একটি ত্রিপড

৩. একটি ভয়েসওভার মাইক্রোফোন

৪. এডিটিং সফ্টওয়্যার


আপনার শ্রোতাদের জন্য কিভাবে একটি শক্তিশালী ভিডিও তৈরী করবেন।

১. স্ক্রিপ্ট : এমন একটি তৈরী করুন যেটাতে আপনার পন্য বা সেবা সম্পর্কে স্পষ্ট ভাবে পয়েন্ট আউট করা থাকে।এবং

২. ক্যামেরা :  ভিডিওটি তৈরির জন্য আপনার একটি প্রো ক্যামেরা সেটআপ প্রয়োজন আপনি চাইলে আপনার শক্তিশালী ক্যামেরাযুক্ত মোবাইলটিও ব্যবহার করতে পারেন।

৩.ত্রিপড: এটি আপনার ক্যামেরাটিকে আপনার ভিডিও স্থিতিশীল করতে সহায়তা করে, কারণ কাঁপানো ভিডিওটি কেউ দেখতে পছন্দ করে না। ট্রিপডের সাহায্যে আপনি প্রচুর সৃজনশীল শট যেমন প্যান ও জুম, ডলি শটস ইত্যাদি নিতে পারেন। আপনি বাজারে ৭০০-৩০০০ টাকার মধ্যে অনেক ভাল ভাল ত্রিপড পেয়ে যাবেন।

৪.আলোকসজ্জা: একটি ভিডিও তৈরি করার সময় এটি অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ,কারণ সঠিক আলোকপাতের অভাবে আপনার ক্যামেরা হাজার ভাল থাকাতেও অনেক সময় আপনি ভাল ভিডিও ধারন করতে পারে না। কখনও প্রয়োজনীয় আলোর অভাবে আবার কখনও অপ্রয়োজনীয় আলোর কারনে। আপনি নরম আলোতে গুলি করতে পারেন (সকাল বা সন্ধ্যা সময়), কঠোর লাইট এড়াতে চেষ্টা করুন (সরাসরি সূর্যালোক), আপনি যদি অন্দর থেকে শুট করেন তবে আপনার হালকা কিছু নরম বাক্সের দরকার হবে, তবে এটি আপনার নিজের ডিআইওয়াই সফট বাক্স তৈরি করতে পারে।

৫.সংগীত:  এটি আপনার ভিডিওকে আরও পেশাদার করতে সহায়তা করে কারণ সংগীতের মাধ্যমে আমরা ভিডিওটিকে আরও ভাল এবং আকর্ষণীয় বোধ করতে পারি। আপনার ভিডিওর জন্য একটি  ভাল সঙ্গীত ব্যবহার করুন।

৬. এডিটিং:  এটি পোস্ট প্রোডাকশন হিসাবেও পরিচিত এটি একটি চূড়ান্ত পদক্ষেপ যেখানে আপনার গল্পটি আসল আকারে আসে, এডিটিং অর্থ কেবল দুটি ক্লিপ, ট্রিম, কাট ইত্যাদিতে যোগদান নয় । আপনার ভিডিও এডিটিং করার সময় আপনাকে খুব সৃজনশীল হতে হবে এবং আপনার স্ক্রিপ্ট অনুসারে আপনার এডিটিং করতে হবে যা আপনাকে আপনার ভিডিওটি খুব দ্রুত এবং ভাল উপায়ে ভিডিও তেরী করতে সহায়তা করে।


এডিটিং সফটওয়্যার

বাজারে প্রচুর এডিটিং সফটওয়্যার রয়েছে। আমি স্তর অনুযায়ী সফ্টওয়্যার এর শ্রেণিবদ্ধ করেছি। বিভাগগুলি নিম্নরূপ:

১. শিক্ষানবিশ

২. মধ্যবর্তী

৩. পেশাদার

শিক্ষানবিশদের জন্য:

সঠিক এডিটিং সফ্টওয়্যারটি চয়ন করা শিক্ষানবিশদের পক্ষে খুব কঠিনHow-to-create-youtube-video.html, কারণ তাদের কাছে ভিডিও এডিটিং সম্পর্কিত কোনও জ্ঞান নেই তাই তারা এই সফ্টওয়্যারটি ব্যবহার করতে পারেন।


১. উইন্ডোজ মুভি মেকার (উইন্ডোজ) এর জন্য।

২. আই মুভি ফর ম্যাক (ম্যাক)। 

মধ্যবর্তীদের জন্য: 

এই বিভাগটি ট্রিম, কাটা, বিভক্ত করা, পাঠ্য যোগ করা ইত্যাদির মতো ভিডিও সম্পাদনার প্রাথমিক জ্ঞান রয়েছে তাদের জন্য


১. ফিল্মোরা (উইন্ডোজ / ম্যাক)।

২. ক্যামটাসিয়া (উইন্ডোজ / ম্যাক)।

৩. শটকুট (উইন্ডোজ)।

৪. পাওয়ারডাইরেক্টর (উইন্ডোজ / ম্যাক)।

৫. ডেভিনিভিসি রেজলভ (উইন্ডোজ / ম্যাক)।

 

পেশাদারদের জন্য

এই জাতীয় এডিটিং সফ্টওয়্যার আপনার পিসি বা ম্যাকের জন্য উচ্চ স্পেসিফিকেশন প্রয়োজন। এই ধরণের সফ্টওয়্যার মুভি, টিভি শো, মিউজিক ভিডিও, ইউটিউব ভিডিও সম্পাদনা করতে ব্যবহৃত হয়।

 

১. অ্যাডোব প্রিমিয়ার প্রো। (উইন্ডোজ / ম্যাক)

৩. ফাইনাল কাট প্রো এক্স। (ম্যাক)

৪. সনি ভেগাস প্রো। (উইন্ডোজ / ম্যাক)

 

মোশন গ্রাফিক্সের জন্য:

অ্যাডোব আফটার ইফেক্টস (উইন্ডোজ / ম্যাক)।

 

ইউটিউব, কী করবেন এবং করবেন না কীভাবে ভিডিওগুলি আপলোড করবেন: -

ইউটিউবে ভিডিও এডিটিং এবং বিষয়বস্তু যদি ভাল হয় তবে লোকেরা আপনাকে সাবস্ক্রাইব করবে এবং অর্থ উপার্জনের জন্য ইউটিউবও বর্তমানে অনেক জনপ্রিয় এবং যদি আপনি এটি সম্পর্কে আগ্রহী হন তবে আপনি আপনার ক্যারিয়ারটিকে ইউটিউব ভিডিও তৈরীর মাধ্যবে বিল্ডআপন করতে পারেন।

 

ইউটিউব এ ভিডিও আপলোডের সময় অবশ্যই করতে হবে:

1. আকর্ষণীয় থাম্বনেইল করুন, অবশ্যই ইউনিক হতে হবে।

২. আপনার ভিডিও শিরোনামে কীওয়ার্ড ব্যবহার করুন।

৩. সঠিক বর্ণনা লিখুন এবং আপনার সংগীতের আসল মালিককে ক্রেডিট দিন।

৪. সবসময় কীওয়ার্ডগুলি সঠিকভাবে লিখুন, কোনও স্প্যামিং করা যাবে না, আপনার বিষয় সম্পর্কিত কীওয়ার্ড ব্যবহার করুন।

৫. ধৈর্য ধরুন, খুব তাড়াতাড়ি হাল ছাড়বেন না।

7. ধারাবাহিক কাজ করে যান

 

যেগুলো করবেন না

1. কোন কনটেন্ট কপি করবেন না।

2. ক্লিক বাইট করবেন না ।

৩. কোনও কীওয়ার্ড স্প্যামিং করবেন না।

4. কনটেন্ট-এর অসামঞ্জস্যতা।

 

 

 

 

অন্যদের সাথে শেয়ার করুন

0 Comments

দয়া করে নীতিমালা মেনে মন্তব্য করুন ??

Betblog24.com